শিরোনামঃ

আমিরাতে বসবাসরত জুড়ীবাসীর সম্মানে আজমল আলীর ইফতার ও দোয়া মাহাফিল অনুষ্ঠিত

সাইফুল ইসলাম সুমন, আমিরাত থেকেঃ অফুরান তেলের খনি, প্রাচুর্য ও বৈভবের সংমিশ্রণে তৈরি আরব আমিরাত যেন স্বপ্নালোক। দেশটির রাজধানী আবুধাবি। দেশটিতে ভিনদেশিদের আধিক্য বেশি। সেখানে প্রতিবছর রমজানে উৎসবমুখর পরিবেশে পালিত হয় রোজা। আর এই মাহে রমজান মাসে আমিরাতে বসবাসরত নিজ এলাকার মানুষদের নিয়ে একসাথে ইফতার করা এ যেন প্রবাসে থেকেও নিজ মাটির ঘ্রাণ নেয়ার মতো। এমন ব্যতিক্রমী আয়োজনটি করেন বাংলাদেশের সিলেট বিভাগের মৌলভীবাজার জেলার জুড়ী উপজেলার কৃতিসন্তান আমিরাতের বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী, সমাজসেবক ও কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব আলহাজ্ব আজমল আলী।

২১ রমজান ২২ এপ্রিল শুক্রবার বিকেলে সংযুক্ত আরব আমিরাতে বসবাসরত জুড়ীবাসীর সম্মানে অনুষ্ঠিত ইফতার ও দোয়া মাহফিল আজমানস্থ স্পাইসি হাউজ রেস্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত হয়। এতে আমিরাতে বসবাসরত প্রায় দুই শতাধিক জুড়ীবাসী অংশ নেয়। এসময় বিপুলসংখ্যক প্রবাসীদের স্বতস্ফূর্ত অংশগ্রহণে ইফতার মাহফিল এক মিলনমেলায় পরিণত হয়।

ইফতার মাহফিলে আগত সবাইকে শুভেচ্ছা ও স্বাগত জানায় আয়োজক আজমল আলীর বড় ছেলে খালেদ হোসেন, মেঝো ছেলে কামরুল হোসেন এবং ছোট ছেলে ফরহাদ হোসেন।

অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তফসির পেশ করে বাংলাদেশ থেকে আগত সিলেট সোবহানীঘাটস্হ শামসুল উলামা হযরত আল্লামা ফুলতলী ছাহেব কিবলাহ (র.) প্রতিষ্ঠিত ঐতিহ্যবাহী দ্বীনী প্রতিষ্ঠান হযরত শাহজালাল দারুচ্ছুন্নাহ ইয়াকুবিয়া কামিল মাদরাসার উপাধ্যক্ষ মাওলানা আবু সালেহ মো: কুতুবুল আলম।

বিশিষ্ট সমাজসেবক ও কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব আলহাজ্ব আজমল আলীর সভাপতিত্বে এবং তরুন সমাজসেবক মর্তুজা আলীর উপস্থাপনায় বক্তব্য রাখেন, সিলেট বিভাগ উন্নয়ন পরিষদ কেন্দ্রীয় কমিটির কো-চেয়ারম্যান আলহাজ্ব জাওয়াদুর রহমান, সিলেট বিভাগ উন্নয়ন পরিষদ আমিরাত শাখার কার্যকরী সভাপতি আজাদ লালন, সাধারণ সম্পাদক সালেহ আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক হাজী শফিকুল ইসলাম, সহ সভাপতি রহমত আলী সোয়েব, বিশিষ্ট কমিউনিটি নেতা আলহাজ্ব বদরুল ইসলাম, এম এ মুকিত সাইদুল, মোঃ হেলাল মিয়া, মোঃ নজরুল ইসলাম, কানু লাল দাস, আব্দুল মুনিম আবুল, আব্দুল মন্নান, ইমরান হোসেন, আইনুল হক, রানা হামিদ, সেলিম আহমদ, কামরান হোসেন, জালাল উদ্দিন, শামীম আহমদ, আসাদুজ্জামান, শামীম উদ্দিন, এম জহির উদ্দিন, হিরা মিয়া, এরশাদ মিয়া, কামেল জাহান শিকদার, ওয়াহিদুর রহমান মুমিন, নজরুল ইসলাম খোকন, হাবিবুর রহমান জয়, সাংবাদিক সাইফুল ইসলাম সুমন, জাকির হোসেন মনির, তৃষা সেন, মামুন মাহিন সহ অনেকেই।

সভায় সমাপনি বক্তব্য দিতে গিয়ে আবেগ আপ্লুত হয়ে পড়েন আলহাজ্ব আজমল আলী। এসময় এক আবেগঘন পরিবেশের সৃষ্টি হয়। আজমল আলী তাঁর বক্তব্যে বলেন, আমি চাই আমাদের জুড়ীর সকল মানুষ এক থাকবে, ঐক্যবদ্ধ থাকবে। সকলে মিলেমিশে থাকবে। সুখেদুঃখে সবাই সবার পাশে থাকবে। আমরা প্রবাসে থাকলেও জুড়ীর ইতিহাস ঐতিহ্য নিয়ে সামনে এগিয়ে যাবো।

তিনি আরো বলেন, দূর প্রবাসে কর্মব্যস্ত জীবনে আজ সকলের অংশগ্রহণে এই ইফতার মাহফিল হয়ে উঠেছে অনেক প্রাণবন্ত। আজ আজমানস্থ স্পাইসি হাউজ রেস্টুরেন্ট জুড়ী প্রবাসীদের পদচারণায় মূখরিত। মনে হচ্ছে এ যেন প্রবাসে এক টুকরো জুড়ী উপজেলা। আজ আমিরাতের বুকে ক্ষুদ্র এক জুড়ী উপজেলার ছোঁয়া পেলাম। আজ এরকম একটা আয়োজন আমাদের কে কিছুটা সময়ের জন্য হলেও ভুলিয়ে দিয়েছিলো আমরা বিদেশে নেই। মনে হল এ যেন প্রবাসের বুকে এক ছোট্ট জুড়ী। এ যেন একটি পরিবার।

ইফতার মাহফিলে দেশবাসীসহ বিশ্বের সকল মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের মঙ্গল কামনায় বিশেষ দোয়া করা হয়। দোয়া ও মোনাজাত পরিচালনা করেন হযরত শাহজালাল দারুচ্ছুন্নাহ ইয়াকুবিয়া কামিল মাদরাসার উপাধ্যক্ষ মাওলানা আবু সালেহ মো: কুতুবুল আলম।

অন্যান্য খবর পড়ুন